Advertisement

Care

হেয়ার স্ট্রেটনিং করানোর পর ঠিক কিভাবে চুলের যত্ন নেবেন

Debapriya BhattacharyyaDebapriya Bhattacharyya  |  Mar 17, 2021
হেয়ার স্ট্রেটনিং করানোর পর ঠিক কিভাবে চুলের যত্ন নেবেন in bengali

হেয়ার স্ট্রেটনিং (post hair straightening care routine) বলুন বা স্মুদনিং হালফ্যাশনে বেশ ইন। অনেকেই আজকাল ব্যস্ত লাইফস্টাইলে ঠিকমতো চুলের যত্ন নিয়ে উঠতে পারেন না। তার মধ্যে তো আবার কার্লি চুল হলে কথাই নেই। চুলের জট ছাড়াতেই সময় শেষ। তাই অনেকেই স্ট্রেটনিংয়ের রাস্তা বেছে নেন। কিন্তু যে হেতু স্ট্রেটনিংয়ের জন্য কেমিক্যাল ব্যবহার করা হয়ে থাকে, সে হেতু চুল নষ্ট হয়ে যেতে থাকে। চুল স্বাভাবিক জেল্লা হারিয়ে ফেলে। হেয়ার ফল হতে শুরু করে। এই সমস্যাগুলো যাতে না হয়, তার জন্যই স্ট্রেটনিংয়ের পর ঘরেই চুলের যত্ন নিতে হবে। তাই জেনে নিন, কী ভাবে স্ট্রেটনিংয়ের (post hair straightening care routine) পর চুলের যত্ন নেবেন।

হেয়ার স্টাইলিস্টের কথা শুনে চলুন

হেয়ার স্ট্রেটনিং করানোর পর স্টাইলিস্টের পরামর্শ মতো চলুন

যে স্টাইলিস্টের কাছ থেকে চুল স্ট্রেট করিয়েছেন, তাঁর কথা মেনে চলুন। উনি যে নির্দিষ্ট ব্র্যান্ডের শ্যাম্পু-কন্ডিশনার ব্যবহার করার কথা বলেছেন, সেটাই ব্যবহার করুন। আসলে উনি যে প্রোডাক্ট ব্যবহার করতে বলছেন, সেই প্রোডাক্ট আপনাকে বেস্ট ট্রিটমেন্ট তো দেবেই, সেই সঙ্গে বারবার আপনাকে বারবার গিয়ে টাচ-আপের করে আসার ব্যাপারটা থেকেও দূরে রাখবে। স্টাইলিস্টের রেকমেন্ড (post hair straightening care routine) করা প্রোডাক্টের দাম একটু বেশি হলেও ক্ষতি নেই! তাতে আপনারই ভাল হবে।

ডিপ কন্ডিশনিং জরুরি

চুল স্ট্রেটনিংয়ের পরে ১৫ দিন অন্তর প্রফেশনাল ডিপ কন্ডিশনিং হেয়ার ট্রিটমেন্ট করাতে হবে। বিশেষত তাঁদের দরকার, যাঁরা সব সময় শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত ঘরে থাকেন। আসলে কেমিক্যালি ট্রিটেড হেয়ার কিন্তু সাধারণ চুলের থেকে বেশিই ড্রাই হয়। ডিপ কন্ডিশনিং স্ট্রেট করা চুলে ময়েশ্চার জোগাবে এবং চুলে ভলিউমও অ্যাড করবে। তার ফলে চুল নষ্ট হবে না। ভাল থাকবে। 

ব্লো-ড্রাই বা অন্যান্য হিটিং টুল থেকে দূরে থাকুন

হেয়ার স্ট্রেটনিং করানোর পর ব্লো ড্রাই করবেন না

চুলে যদি স্ট্রেটনিং করিয়ে থাকেন, তা হলে চুলে অতিরিক্ত হিট (post hair straightening care routine) ব্যবহার করবেন না। এই যেমন ইচ্ছে হল তো ব্লো ড্রাই করলেন, অথবা চুলে টং বা পার্মিং করলেন। সেটা কিন্তু চলবে না। তাপের প্রভাবে আপনার চুলের নরম কিউটিকলসগুলো ড্রাই হয়ে যায়। যার ফলে হেয়ার ফল হতে শুরু করে। যদি রোজ ব্লো-ড্রায়ার ব্যবহার করতেই হয়, তা হলে একটা ডিফিউজার কিনে নিন। 

চুলের নানা অ্যাকসেসরিজ ব্যবহার কম করুন

স্ট্রেটনিংয়ের পরে আপনার স্টাইলিস্ট আপনাকে নিশ্চয়ই বলে দেবেন যে, কত দিন পর্যন্ত চুলে কোনও রকম ক্লিপ আটকানো যাবে না। পরে যখন ক্লিপ ব্যবহার করবেন, তখন কিন্তু ভাল কোনও কোয়ালিটির অ্যাকসেসরিই ব্যবহার করবেন। সস্তার প্লাস্টিক ক্লিপ, শার্প বব পিন, রাবার ব্যান্ড কিন্তু ব্যবহার করলে চলবে না। আসলে অ্যাকসেসরি ভাল না হলে আপনার চুল ছিঁড়ে যাবে। আর স্ক্যাল্পেও চাপ পড়বে। যার ফলে চুল নষ্ট হয়ে যেতে থাকবে। 

নিয়মিত অয়েল মাসাজ করাতেই হবে

হেয়ার স্ট্রেটনিং করানোর পর নিয়মিত চুলে তেল মালিশ করা অত্যন্ত জরুরি

স্ট্রেটনিং নিয়ে একটা কমন ভুল ধারণা হল, স্ট্রেট করা চুলে তেল লাগানো যাবে না। হ্যাঁ তবে স্ট্রেটনিং করানোর পরে বেশ কয়েক দিন তেল লাগানো যাবে না। তার পর কিন্তু স্ট্রেট করা চুলে তেলই দারুণ উপাদান। কারণ তেলই চুলের বেস্ট ন্যাচারাল ময়েশ্চারাইজার। এমনিতে তো চুলে হট অয়েল মাসাজ (post hair straightening care routine) করেই থাকেন। স্ট্রেট করা চুলেও হট অয়েল মাসাজ করলে চুল ভাল থাকবে। আর স্ক্যাল্পও ড্রাই হয়ে যাবে না।

https://bangla.popxo.com/article/diy-skin-detox-face-masks-in-bengali

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!       

বাড়িতে থেকেই অনায়াসে নতুন নতুন বিষয় শিখে ফেলুন। শেখার জন্য জয়েন করুন #POPxoLive, যেখানে আপনি সরাসরি আমাদের অনেক ট্যালেন্ডেট হোস্টের থেকে নতুন নতুন বিষয় চট করে শিখে ফেলতে পারবেন। POPxo App আজই ডাউনলোড করুন আর জীবনকে আরও একটু পপ আপ করে ফেলুন!