চিনাদের মতো নিখুঁত, দাগছোপহীন ত্বক পেতে চান? ফাঁস হল তাঁদের বিউটি সিক্রেট

চিনাদের মতো নিখুঁত, দাগছোপহীন ত্বক পেতে চান? ফাঁস হল তাঁদের বিউটি সিক্রেট

সত্যি কথা বলতে গেলে, ইউরোপীয়দের তুলনায় এশীয়দের ত্বক ঢের বেশি ভাল! সাদা চামড়ার প্রতি কিংবা ফর্সা রংয়ের প্রতি আমাদের, মানে, ভারতীয়দের মনে একটু দুর্বলতা আছে বটে, কিন্তু ত্বকের রং ফর্সা, এদিকে মুখে ব্রণ-অ্যাকনে ভিড় জমিয়েছে, সেটা দেখতে কি আদৌ ভাল লাগে? ইউরোপীয়রা বেশিরভাগই ফ্রেকলস, মানে মেচেতার সমস্যায় ভোগেন, তাঁদের স্কিনে (skin) লাল ছোপও দেখা যায় অনেক সময়। কিন্তু চিনা-জাপানি-কোরীয়দের দেখুন, তকতকে, উজ্জ্বল আভা ছড়িয়ে ঘুরে বেড়ান সব সময়! কোনও ব্রণ নেই, দাগছোপ নেই, ট্যান নেই, ডার্ক সার্কল নেই...হিংসে হয় কিনা বলুন! তবে শুধু হিংসে করলে তো হবে না, তাঁরা কীভাবে ত্বকের দেখভাল করেন, সেটাও জানতে হবে, তবেই না তাঁদের মতো নিখুঁত ত্বকের (flawless skin) অধিকারী হবেন আপনিও। আমরা তাই খুঁজে-খুঁজে বের করেছি কিছু চিনা বিউটি সিক্রেট, যা ওঁরা নিয়মিত অ্যাপ্লাই করেন রূপচর্চায় (beauty habits)। আর হ্যাঁ, পুরোটাই কিন্তু প্রাকৃতিক! ১০০ শতাংশ প্রাকৃতিক এবং ঘরোয়া রেমিডিই চিনারা মেনে চলেন। আমার-আপনার মতো স্কিন কেয়ার প্রোডাক্টস কিনে পয়সা এবং সময় নষ্ট করেন না! এখানে গোটাকয়েক চিনা বিউটি সিক্রেট (Chinese beauty secrets) বলে দিলাম আমরা, আপনি বেছে নিন কোনটা ফলো করতে চান...

১. বিবর্ণ ত্বককে আবার সজীব করে তুলতে...

pixabay

এই ব্যাপারে চিনারা ভরসা রাখেন ঝিনুকের গুঁড়োর উপর! ঝিনুক গুঁড়ো করে তার মধ্যে মধু আর ডিমের সাদা অংশ মিশিয়ে একটা প্যাক তৈরি করেন তাঁরা। তারপর সেই প্যাকটি মুখে মিনিটপনেরো ধরে রেখে দিয়ে ধুয়ে ফেলেন। এই প্যাক নাকি ত্বকের জ্বালা কমিয়ে দেয়, কোনও অ্যালার্জি কিংবা ইরিটেশন থাকলে তা দূর করে এবং ত্বককে ভিতর থেকে সজীব করে তোলে। ভারতে ঝিনুক গুঁড়ো কিনতে পাওয়া একটু মুশকিলের। কিন্তু তার পরিবর্তে আপনারা মুক্তো গুঁড়ো ব্যবহার করতে পারেন। কিংবা বাজার থেকে পার্ল ফেস মাস্ক কিনে তার সঙ্গে বাকি উপাদান মিশিয়েও লাগাতে পারেন।

২. ত্বকের বয়স কমাতে চাইলে...

pixabay

চিনাদের দেখে কোনওদিন তাঁদের আসল বয়স আন্দাজ করতে পেরেছেন? আমরাও পারিনি! পারিনি, কারণ, তাঁদের রূপচর্চায় এমন কিছু সিক্রেট উপাদান থাকে, যা তাঁদের ত্বকের বয়স বাড়তেই দেয় না। যেমন ধরুন, গ্রিন টি। এই গ্রিন টি তাঁরা নিয়মিত পান করেন এবং এটি দিয়ে তৈরি নানা ধরনের ফেস প্যাক ব্যবহার করেন ত্বকচর্চায়। যেমন, গ্রিন টি পাতার সঙ্গে মধু ও লেবু মিশিয়ে মুখে লাগান তাঁরা। এটি ত্বকের বয়স কমানোর জন্য খুবই কার্যকরী।

৩. ত্বকে ঔজ্জ্বল্য আনতে

pixabay

পুদিনাপাতা বেটে, সেই পেস্ট সারা মুখে লাগিয়ে রাখুন বেশ কিছুক্ষণ ধরে। দেখবেন, ত্বক জ্বলজ্বল করবে! অন্তত চিনারা তো সেরকমই করেন!

৪. চাল ধোওয়া জল দিয়ে স্কিন টোনার

shutterstock

এক বাটি চাল নিয়ে অল্প জলে ডুবু-ডুবু করে ভিজিয়ে রাখুন। একটা চামচ দিয়ে ক্রমাগত নাড়তে থাকুন যতক্ষণ না জলটা রং বদলে সাদা হয়ে যাচ্ছে! এবার এই জলটা ছেঁকে নিয়ে একটা শিশিতে ভরে ফ্রিজে স্টোর করুন। চিনারা এই জলটাই নাকি টোনার হিসেবে ব্যবহার করেন। তবে তিন-চারদিন পরপর এই জলটা ফেলে দিতে হবে। 

৫. মুখের বলিরেখা কমাতে চাই ডিম

pixabay

একটা ডিম ফেটিয়ে তার কুসুমটা ফেলে দিন। সাদা অংশটা সারা মুখে লাগিয়ে রাখুন যতক্ষণ না শুকিয়ে চড়চড় করছে! এবার তুলে ফেলুন ঘষে-ঘষে। তারপর জল দিয়ে মুখ ধুয়ে দিন। মুখের বলিরেখা দূর করতে এর চেয়ে ভাল উপায় আর নেই।

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

আপনি যদি রংচঙে, মিষ্টি জিনিস কিনতে পছন্দ করেন, তা হলে POPxo Shop-এর কালেকশনে ঢুঁ মারুন। এখানে পাবেন মজার-মজার সব কফি মগ, মোবাইল কভার, কুশন, ল্যাপটপ স্লিভ ও আরও অনেক কিছু!