Advertisement

Perfumes

ত্বকের ক্ষতি না করেও সারাদিন সুরভিত থাকতে বাড়িতেই তৈরি করে নিন ডিওডোরেন্ট

Debapriya BhattacharyyaDebapriya Bhattacharyya  |  Nov 11, 2019
ত্বকের ক্ষতি না করেও সারাদিন সুরভিত থাকতে বাড়িতেই তৈরি করে নিন ডিওডোরেন্ট

গরম আগেই বিদায় নিয়েছে। বাতাসে এখন অল্পস্বল্প হিমের ছোঁওয়া। শীত এসে পড়ল বলে! শীতকালে যেহেতু ঘাম হয় না বা হলেও তা তুলনামূলকভাবে কম হয়, কাজেই অনেকের মনেই একটা অদ্ভুত ধারণা আছে যে, শীতকালে ডিওডোরেন্ট (deo) না লাগালেও চলে! অবশ্য অনেকেই আছেন, যাঁদের শীত-গ্রীষ্ম-বর্ষা, সব ঋতুতেই পারফিউম আর ডিওডোরেন্ট ছাড়া একেবারেই চলে না। আপনি যে দলেই পড়ুন না কেন, অতিরিক্ত কেমিক্যালসমৃদ্ধ ডিওডোরেন্টও কিন্তু ত্বকের (skin) পক্ষে একদমই ভাল নয়। তবে যদি বাড়িতেই তৈরি (home made) করে নিতে পারেন ন্যাচারাল ডিওডোরেন্ট, তা হলে যত খুশি মাখুন, কোনও সমস্যা নেই!

https://bangla.popxo.com/article/follow-french-skin-care-routine-to-get-flawless-skin-in-bengali

বাড়িতে কীভাবে তৈরি করবেন ডিওডোরেন্ট

বাজারচলতি নানা সুগন্ধি ডিওডোরেন্ট (deo) পাওয়া গেলেও ত্বকের পক্ষে তা কতখানি ভাল, সে বিষয়ে যথেষ্ট সন্দেহ আছে। আপনি যদি সারাদিন সুরভিত থাকতে চান অথচ ত্বকের কোনও ক্ষতি না করে, তাহলে বাড়িতে তৈরি করতে পারেন আমাদের বলে দেওয়া ন্যাচারাল ডিওডোরেন্ট।

১। নারকেল তেল দিয়ে ডিওডোরেন্ট

শাটারস্টক

কী কী প্রয়োজন: চার থেকে ছয় টেবিল চামচ নারকেল তেল (অরগানিক হলে খুবই ভাল হয়), আধ কাপের কিছু কম বেকিং সোডা, আধ কাপের কিছু বেশি অ্যারারুট, ২০ থেকে ২৫ ফোঁটা এসেনশিয়াল অয়েল (আপনার পছন্দের যে-কোনওটি)

কীভাবে তৈরি করবেন: নারকেল তেল সামান্য ঊষ্ণ করে নিন এবং আঁচ বন্ধ করে বেকিং সোডা ও অ্যারারুট মিশিয়ে নিন। খুব ভাল করে মেশান, যাতে একটা ক্রিম ক্রিম পেস্ট তৈরি হয়। এবারে তাতে এসেনশিয়াল অয়েল দিয়ে ভাল করে মেশান। এবারে খালি ডিওডোরেন্টের বোতলে আপনার তৈরি ন্যাচারাল (homemade) ডিওডোরেন্ট (deo) ঢেলে ঠান্ডা করে নিন। মনে করে ফ্রিজে রাখবেন। যেহেতু এতে কোনও প্রিজারভেটিভ দেওয়া হচ্ছে না, ফ্রিজে না রাখলে নষ্ট হয়ে যেতে পারে।

৩। ভডকা দিয়ে ডিওডোরেন্ট

শাটারস্টক

কী কী প্রয়োজন: দেড় কাপ ভডকা, আধ কাপের একটু কম সেজ পাতা (শুকনো সেজ হলেও অসুবিধে নেই), আধ কাপের একটু কম থাইম, আধ কাপের একটু কম শুকনো ল্যাভেন্ডার, একটা গোটা লেবুর খোসা, একটা গোটা কমলালেবুর খোসা, আপনার পছন্দমতো এসেনশিয়াল অয়েলের ২০ থেকে ২৫ ফোঁটা (চাইলে অবশ্য আপনি দু’-তিন রকমের এসেনশিয়াল অয়েলও ব্যবহার করতে পারেন। তবে সেক্ষেত্রে খেয়াল রাখবেন যেন মোটামুটি কাছাকাছি গন্ধ হয়)

কীভাবে তৈরি করবেন: শুকনো সেজ পাতা, থাইম আর ল্যাভেন্ডার একসঙ্গে খুব ভাল করে মিশিয়ে নিন। প্রয়োজনে একটি বড় পাত্রে সব পাতাগুলি ঢেলে নিয়ে মুখ বন্ধ করে ভাল করে ঝাঁকিয়ে নিন। এতে সবগুলি পাতা খুব ভাল করে মিশে যাবে। এবারে ওই পাত্রে ভডকা ঢেলে মুখ বন্ধ করে রেখে দিন। এমন কোথাও রাখবেন, যেখানে সরাসরি সূর্যের আলো ওই পাত্রে লাগবে না। একমাস ওভাবেই রেখে দিন। প্রতিদিন একবার করে পাত্রটি ঝাঁকাতে ভুলবেন না। এক মাস পর একটি স্প্রে বটলে সমস্ত হার্বস মেশানো ভডকা ঢেলে, তাতে এসেনশিয়াল অয়েল মিশিয়ে নিন। যখনই ব্যবহার করবেন, একবার ঝাঁকিয়ে স্প্রে করুন, সারাদিন সুগন্ধে মেতে থাকবেন, ত্বকের (skin) কোনও ক্ষতি ছাড়াই!

যাঁরা এত কষ্ট করতে পারবেন না, তাঁদের জন্য রইল একেবারে প্রাকৃতিক কয়েকটি ডিওডোরেন্টের হদিশ

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

এসে গেল #POPxoEverydayBeauty – POPxo-র স্কিন, বাথ, বডি এবং হেয়ার প্রোডাক্টস নিয়ে, যা ব্যবহার করা ১০০% সহজ, ব্যবহার করতে মজাও লাগবে আবার উপকারও পাবেন! এই নতুন লঞ্চ সেলিব্রেট করতে প্রি অর্ডারের উপর এখন পাবেন ২৫% ছাড়ও। সুতরাং দেরি না করে শিগগিরই ক্লিক করুন POPxo.com/beautyshop-এ এবার আপনার রোজকার বিউটি রুটিন POP আপ করুন এক ধাক্কায়…