চুলের যত্ন নিয়ে নানা টিপস

কফি দিয়েই হবে রূপচর্চা – জেনে নিন, কীভাবে ব্যবহার করবেন

Debapriya BhattacharyyaDebapriya Bhattacharyya  |  Jul 24, 2020
কফি দিয়েই হবে রূপচর্চা – জেনে নিন, কীভাবে ব্যবহার করবেন

সকালে উঠে এক কাপ কফি (coffee) না খেলে অনেকেরই চলে না। ওই এক কাপ কফি যেন সারাদিন কাজে এনার্জি যোগানোর একটা পন্থা! তবে কফি যে শুধুমাত্র পানীয় হিসেবেই কাজে আসে তা কিন্তু নয়। ছোট্ট ছোট্ট খয়েরি দানাগুলি কিন্তু আপনার রোজকার বিউটি রুটিনেও যোগ করতে পারেন। জেনে নিন সৌন্দর্য (skin care) বাড়িয়ে তুলতে কফি ঠিক কতটা উপকারী।

ত্বকের যত্নে কফি

ত্বকের যত্নে কফি নানাভাবে ব্যবহার করতে পারেন

এখন আর আপনাকে নানা স্কিন ট্রিটমেন্টের (skin care) জন্য পার্লারে একগাদা টাকা খরচ করতে হবে না। রূপচর্চার সিক্রেট উপকরণ তো আপনার বাড়িতেই রয়েছে। কিন্তু জেনে নিন, ত্বকের যত্নে ঠিক কিভাবে ব্যবহার করবেন কফি –

১। ডার্ক সার্কেল, চোখের নিচের ফোলাভাব এবং ক্লান্তি দূর করতে কফি (coffee) দারুণ কাজে দেয়। এক টেবিল চামচ কফি পাউডার ও ডার্ক চকলেটের একটা কিউব পরিমাণ মতো জলে গুলে নিয়ে একটা পেস্ট তৈরি করে নিন। চোখের চারপাশে লাগিয়ে মিনিট পনেরো অপেক্ষা করে ঠান্ডা জলে ধুয়ে নিন। পরে প্রয়োজনে ময়শ্চারাইজার লাগাতে পারেন।

২। কফিতে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি অক্সিডেন্ট এবং অ্যান্টিইনফ্লেমেটরি উপাদান রয়েছে। ত্বকের যে-কোনও রকম জীবাণু সংক্রমণ রোধ করতে কফি খুব কার্যকরী। অনেক সময় আমাদের ত্বকে জীবাণু সংক্রমণ ও দূষণের ফলে ত্বক অনুজ্জ্বল দেখায়। সেক্ষেত্রে কফি স্ক্রাব কিন্তু খুব ভাল কাজে দেয়। এই সমস্যা দূর করার জন্য ঠান্ডা জল ও কফি পাউডার মিশিয়ে একটি স্ক্রাব তৈরি করে নিন এবং মুখ, গলা ও ঘাড়ে পাচ-দশ মিনিট মাসাজ করুন। এরপর স্ক্রাব শুকিয়ে গেলে উষ্ণ জলে ধুয়ে ফেলুন। দেখবেন নিমেষের মধ্যে ত্বক উজ্জ্বল হয়ে উঠবে।

৩। আধ কাপ কফি পাউডারের (coffee) সঙ্গে দুই টেবিল চামচ নারকেল তেল ও দুই চা চামচ ভ্যানিলা এসেন্স মিশিয়ে পায়ের পাতায় ও গোড়ালিতে লাগিয়ে নিন। আলতো করে মাসাজ করে নিতে পারেন। শুকিয়ে গেলে উষ্ণ জলে পা ধুয়ে নিন। যদি পায়ে কোনও মরা চামড়া বা ফাটা থাকে তাহলে সপ্তাহে একবার করে এই স্ক্রাবটি করুন। কিছুদিনের মধ্যেই তফাৎটা দেখতে পাবেন।

চুলের যত্নে কফি

চুলের যত্নে কফি নানাভাবে ব্যবহার করতে পারেন

কফি যে শুধুমাত্র ত্বকের যত্নেই কাজে আসে তা নয়, চুলের যত্নেও (hair care) কফি সমানভাবে কার্যকরী। জেনে নিন চুলের যত্নে ঠিক কিভাবে কাজে লাগাবেন কফি –

১। যদি আপনার চুল রুক্ষ এবং নিষ্প্রাণ হয় যায় তাহলে কফি (coffee) ব্যবহার করে আবার আপনি আগের মত মোলায়েম ও জেল্লাদার চুল ফিরে পেতে পারেন। কফিতে অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট তো রয়েছেই, সঙ্গে রয়েছে বেশ খানিকটা প্রোটিন। ফলে রুক্ষ ও নিষ্প্রাণ চুল ভিতর থেকে মেরামত করে চুলে পুষ্টি যোগায় কফি। আপনি চাইলে শ্যাম্পুর সঙ্গে সামান্য কফি পাউডার মিশিয়ে চুল ধুতে পারেন। আবার যদি মনে করেন, তাহলে হেয়ার মাস্কের সঙ্গেও কফি পাউডার মিশিয়ে চুলে লাগাতে পারেন সপ্তাহে একদিন করে।

২। অনেকেই চুলে রং করতে চান, কিন্তু ক্ষতি হওয়ার ভয়ে আর করে উঠতে পারেন না। সেক্ষেত্রে কিন্তু কফি পাউডার (coffee) একটি দারুণ বিকল্প। হেনা পাউডার, আমলকী পাউডার এবং কসি পাউডার মিশিয়ে একটি পেস্ট তৈরি করুন। এবারে পরিস্কার চুলে অই পেস্ট লাগিয়ে নিন। আধঘন্টা পর ঠান্ডা জলে চুল ধুয়ে ফেলুন। পরদিন শ্যাম্পু করবেন। দেখবেন, চুলে একটা হাল্কা রং ধরেছে এবং একই সঙ্গে চুল জেল্লাদারও হয়ে উঠেছে।

POPxo এখন চারটে  ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, মারাঠি আর বাংলাতেও!