মেকআপ ট্রেন্ড ও আইডিয়া

মেকআপ ব্যাগে কী-কী রাখবেন, কেনই বা রাখবেন, রইল একগুচ্ছ অত্যাবশ্যকীয় জিনিসের তালিকা

Parama SenParama Sen  |  Jul 17, 2019
মেকআপ ব্যাগে কী-কী রাখবেন, কেনই বা রাখবেন, রইল একগুচ্ছ অত্যাবশ্যকীয় জিনিসের তালিকা

যা-ই বলুন না কেন, এই মেকআপ ব্যাগ (makeup) কিংবা বাক্স গোছানোটা কিন্তু ভারী ঝকমারি ব্যাপার! বেশিরভাগ সময়েই আমরা বুঝে উঠতে পারি না যে, ঠিক কী-কী কিনব আর কী-কী কিনব না! তারপর কিনলেও কী দেখে কিনব, কখন কিনব, কোত্থেকে কিনব, কতদিন পর-পর মেকআপ বক্স গোছাব ইত্যাদি ইত্যাদি! ঠিক দেখবেন, বিয়েবাড়িতে যাওয়ার আগে আপনার লাল লিপস্টিক ফুরিয়ে গিয়েছে, কমপ্যাক্টটা খুঁজেই পাচ্ছেন না, পারফিউম তলানিতে এসে ঠেকেছে আর আইশ্যাডো ব্রাশটা বেমালুম গায়েব! তাই আমরা মুশকিল আসান করার জন্য নিয়ে এসেছি কিছু টিপস (tips)। প্রথমে বলে দিচ্ছি যে, মেকআপ ব্যাগে বা বাক্সে (kit) কী-কী থাকা উচিত আর দ্বিতীয়ত বলে দেওয়া হবে যে, মেকআপের জিনিসপত্র কীভাবে কিনতে (makeup shopping) ও গোছাতে হবে। ভেবে দেখবেন, এগুলো সবই কিন্তু সমান গুরুত্বপূর্ণ!

১. মেকআপ কিটে এই ১০টি জিনিস অতি অবশ্যই থাকা উচিত (10 things you should have in your makeup kit)

ইনস্টাগ্রাম

১. ময়শ্চারাইজার এবং প্রাইমার: জানি, এই দুটি জিনিস আসলে স্কিন কেয়ার রেজিমের অংশ হওয়া উচিত। কিন্তু এই দুটিতে জুটি বেঁধে মেকআপের প্রাথমিক কাজটা সামলে দেয়, যাকে আমরা বলি বেস। মানে, মেকআপ শুরু করার আগে ময়শ্চারাইজারে অল্প প্রাইমার মিশিয়ে ভাল করে মুখে-গলায় লাগিয়ে নিন। তা হলে আপনার ত্বক মেকআপ রেডি হয়ে যাবে। প্রাইমার ব্যবহার করতে না চাইলে টিন্টেড ময়শ্চায়াইজারও লাগাতে পারেন।  

২. কনসিলার ও ফাউন্ডেশন: এটি বেস তৈরির জন্য দ্বিতীয় জরুরি জিনিস। ফাউন্ডেশন কিনবেন নিজের স্কিন টোনের সঙ্গে ম্যাচ করে, কনসিলারও তাই। ফাউন্ডেশন আর কনসিলারের শেড যেন একই হয়।

৩. নানারকম ব্রাশ (আই শ্যাডো ব্রাশ, স্পুলি ব্রাশ, ব্লাশ অন ব্রাশ, পাউডার ব্রাশ): মোটামুটি কয়েক ধরনের ব্রাশ যেমন, আইশ্যাডো ব্রাশ, ব্লাশ অন ব্রাশ, পাউডার ব্রাশ আর আইব্রো ব্রাশ থাকলেই চলবে। আরও অ্যাডভান্সড মেকআপ করতে চাইলে অবশ্য হরেক কিসিমের ব্রাশ আছে, তা নিয়ে আমরা আগেই আলোচনা করেছি।

৪. আইলাইনার ও মাস্কারা: এই দুটি খুব গুরুত্বপূর্ণ। আপনি যে ধরনের আই লাইনারে স্বচ্ছন্দ, সেটিই ব্যবহার করুন। পেনসিল হলে পেনসিল, লিকুইড হলে লিকুইড।

৫. নুড ও লাল লিপস্টিক: দুটো রং থাকলেই যথেষ্ট, বিশ্বাস করুন! একটা হালকা আর একটা গাঢ়, আর কিছুর এমনিতে দরকার পড়ে না। 

৬. ব্লাশ অন ও হাইলাইটার: আপনার মুখের কাটিং ঠিক করার জন্য এই দুটি জিনিসের প্রয়োজন আছে। এগুলি বাড়তি নয়, দরকারি।

৭. মেকআপ ওয়াইপস: মেকআপ লাগানো যতটা গুরুত্বপূর্ণ, মেকআপ তোলাও ঠিক ততটাই জরুরি। সেই কাজে সাহায্য করবে এই বস্তুটি।

৮. আইশ্যাডো প্যালেট: কেনার আগে রংগুলো দেখে নিন। মোটামুটি বেসিক কিছু রং, যেমন, কালো, সাদা, খয়েরি, লাল, গোলাপি থাকলেই হল!

৯. আইব্রো পেনসিল: ভুরুও যে মেরামতের প্রয়োজন আছে, তা অনেকেই আমরা ভুলে যাই। ফলে চোখের মেকআপ নজরকাড়া, কিন্তু ফ্যাটফ্যাটে ভুরু নিয়ে ঘুরে বেড়াই! তাই একজোড়া গাঢ় গ্রে ও কালো আইব্রো পেনসিল রেখে দিন সংগ্রহে।

১০. প্রেসড পাউটার বা কমপ্যাক্ট বা ট্রান্সলুসেন্ট পাউডার: যে-কোনও একটা ভ্যারাইটি রাখুন নিজের কাছে, ত্বকের শেড অনুযায়ী। 

মেকআপ শপিংয়ের জরুরি টিপস (Tips for makeup shopping)

পিক্সাবে

১. মেকআপ কেনার আগে দেখে নিন, আপনার কাছে ইতিমধ্যেই কী-কী আছে। তার একটা তালিকা তৈরি করে তারপর শপিংয়ে বেরন বা অনলাইনে অর্ডার দিন।

২. ফাউন্ডেশন, পাউডার, প্রাইমার, কনসিলার, এগুলি কেনার আগে স্কিন টোনের সঙ্গে তা ম্যাচ হচ্ছে কিনা দেখে নিয়ে তবেই কিনবেন। যদি অনলাইনে অর্ডার করেন, তা হলে সেই ব্র্যান্ডেরটা অর্ডার করুন, যেটি আপনি আগে ব্যবহার করেছেন। 

৩. প্রোডাক্টের এক্সপায়ারি ডেট অতি অবশ্যই দেখে নেবেন। যখন কিনছেন, ফাউন্ডেশন, প্রাইমার, কনসিলারের এক্সপায়ারি যেন অন্তত তার চেয়ে বছরদুয়েক পরে এক্সপায়ার করে। কারণ, এই ধরনের প্রোডাক্টগুলি আমরা সম ব্যবহার করি।

৪. লিপস্টিক এক্সপায়ার করে গেলে তখনই ডাস্টবিনে ফেলুন, তা সে আপনার যত পছন্দের রংই হোক না কেন!

৫. আইলাইনার শুকিয়ে গেল তাতে জল ঢেলে কিংবা নেলপলিশ শুকিয়ে গেলে তাতে থিনার মিশিয়ে ব্যবহার করবেন না। শুকিয়ে গিয়েছে মানে, ওগুলি ব্যবহারের যোগ্য নেই আর!

৬. নামী মেকআপ ব্র্যান্ডের প্রোডাক্টই কিনবেন। স্রেফ পয়সা কম লাগবে বলে সস্তার জিনিস কিনে বিপদে পড়বেন না। কম কিনুন, একগাদা ভ্যারাইটি কেনার দরকার নেই। কিন্তু নামী কিনুন!

৭. মেকআপ শপিংয়ে বেরোলে কাউকে সঙ্গে নিয়ে যান, কোনও লিপস্টিক আপনাকে মানাচ্ছে কিনা কিংবা নেলপলিশের রংটা ভাল কিনা, সেই বিষয়ে অন্য একটা মতামত পেলে মন্দ হয় না।

৮. ট্রেন্ড অনুযায়ী লিপস্টিক বা নেলপলিশ কিনবেন না। ক্যাটরিনা কাইফ থেকে আলিয়া ভট্ট সকলেরই এখন লাল ঠোঁটে হাসি বলে আপনিও চটপট লাল লিপস্টিক কিনে ফেললেন, এদিকে আপনাকে মোটেও মানাল না, ফলে সেটা এক কোণে পড়ে রইল, একেই বলে পয়সা-সময়ের অপচয়!

৯. মেকআপ প্রোডাক্টস কিনতে আপনি যত ব্যস্ত, ঠিক ততটাই সময় খরচ করুন মেকআপ তোলার জিনিসপত্র কিনতেও! একটা ভাল মেকআপ রিমুভার, ওয়াইপস, মেকআপ রিমুভিং অয়েল থাকুক আপনার মেকআপ বাক্সে।

১০. ইমপালস বায়িং বা জাস্ট লোভ সামলাতে পারলাম না বলে কিনে ফেললাম ব্যাপারটা মেকআপ শপিংয়ের সময় জাস্ট ভুলে যান!    

POPxo এখন ৬টা ভাষায়! ইংরেজি, হিন্দি, তামিল, তেলুগু, মারাঠি আর বাংলাতেও!

আপনি যদি রংচঙে, মিষ্টি জিনিস কিনতে পছন্দ করেন, তা হলে POPxo Shop-এর কালেকশনে ঢুঁ মারুন। এখানে পাবেন মজার-মজার সব কফি মগ, মোবাইল কভার, কুশন, ল্যাপটপ স্লিভ ও আরও অনেক কিছু!